আক্রান্তদের ৮০ শতাংশের দেহে ‘ডেল্টা ভেরিয়েন্ট’

কালান্তর ডেস্ক:
দেশে গত দুই মাসে করোনাভাইরাসে আক্রান্তদের নমুনা পরীক্ষায় ৮০ শতাংশের দেহে অতি সংক্রমণশীল ভারতীয় ধরণ বা ডেল্টা ভেরিয়েন্ট পাওয়া গেছে। এক গবেষণা শেষে এ তথ্য জানিয়েছে সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউট।
মঙ্গলবার আইইডিসিআর এ গবেষণা প্রতিবেদন প্রকাশ করে।
এ প্রসঙ্গে আইইডিসিআরের প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা এ এস এম আলমগীর বলেন, মে ও জুন মাসে জিনোম সিকোয়েন্সিং করে ৮০ শতাংশের মধ্যে ডেল্টা ভেরিয়েন্ট পাওয়া গেছে। তাদের মধ্যে ১০ থেকে ১২ শতাংশের সাউথ আফ্রিকার ভেরিয়েন্ট দেখা গেছে।
বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) করোনার এই ধরনটির নাম দিয়েছে ‘ডেল্টা ভেরিয়েন্ট’। ভারতে প্রথম করোনার এই ধরনটি শনাক্ত হয় গত বছরের অক্টোবরে। এটি দ্রুত একজনের কাছ থেকে অন্যের শরীরে ছড়িয়ে পড়তে পারে।
গত ১১ মে দেশে করোনার ভারতীয় ধরন শনাক্ত হওয়ার এ পর্যন্ত করোনভাইরাসের ৫০টি নমুনার জিনোম সিকোয়েন্স করেছে আইইডিসিআর। এর মধ্যে ৪০টি অর্থাৎ ৮০ শতাংশ নমুনায় ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট, ১৬ শতাংশ নুমনায় বিটা ভ্যারিয়েন্ট অর্থাৎ দক্ষিণ আফ্রিকার ধরন শনাক্ত হয়েছে।
এদিকে করোনাভাইরাসের ডেল্টা ভেরিয়েন্টের বিস্তার উদ্বেগ তৈরি করেছে স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের মাঝে। সীমান্তবর্তী জেলাগুলো থেকে করোনার এ ধরনটি এরই মধ্যে রাজধানী ও আশপাশের কয়েকটি এলাকায় পৌঁছে গেছে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ঢাকায় এখন যেভাবে শনাক্ত ও মৃত্যু তুলনামূলক কম আছে, সেটা আগামী দুই সপ্তাহে পাল্টে গিয়ে আবার ঊর্ধ্বমুখী হয়ে উঠতে পারে। এ ক্ষেত্রে জরুরি হয়ে পড়েছে একাধারে সংক্রমণ রোধ ও হাসপাতাল ব্যবস্থাপনাকে আবার প্রস্তুত রাখা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x