খুলনা জেলা প্রশাসনের বিভিন্ন স্থাপনার উদ্বোধন ও ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন

তথ্যবিবরণী:
খুলনার জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেনের উদ্যোগ ও পরিকল্পনায় সার্কিট হাউজে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘরের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন, খুলনা সার্কিট হাউজের সৌন্দর্যবর্ধন, ডিজিটালকক্ষ ব্যবস্থাপনা ও কনফারেন্সকক্ষ আধুনিকায়ন, প্রধান ফটকের নির্মাণ কাজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন, খুলনা কালেক্টরেট জামে মসজিদের দ্বিতীয় তলার উদ্বোধন এবং জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের আধুনিকায়নের অংশ হিসেবে প্রধান ফটক ও বাউন্ডারি ওয়াল নির্মাণ কাজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন আজ (শনিবার) দুপুরে অনুষ্ঠিত হয়।
খুলনার বিভাগীয় কমিশনার মোঃ ইসমাইল হোসেন এসকল স্থাপনার উদ্বোধন ও ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন।
উদ্বোধনকালে খুলনার অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (সার্বিক) মোঃ আব্দুর রশিদ, জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেন, জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগের উপপরিচালক মোঃ ইকবাল হোসেন, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এমডিএ বাবুল রানা, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোঃ ইউসুপ আলী, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মোঃ সাদিকুর রহমান খান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (এলএ) মোঃ মারুফুল আলম, বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ আলমগীর কবির, খুলনা প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের আঞ্চলিক পরিচালক আফরোজা খান মিতা, খুলনা প্রেসক্লাবের সভাপতি এসএম জাহিদ হোসেন, সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি মুন্সি মাহবুব আলম সোহাগ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
উল্লেখ্য, বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘরে যা থাকবে বঙ্গবন্ধুর ৫৫ বছরের ঐতিহাসিক মূহুর্তের ছবি, বঙ্গবন্ধুর পরিবারের ছবি, খুলনায় বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিময় ছবি, বঙ্গবন্ধুর পরিবার থেকে সংগৃহিত তার ব্যবহৃত সরঞ্জাম/পোষাক, বঙ্গবন্ধুর ভ্রাতা শহীদ আবু নাসের ব্যবহৃত ও পিতা-মাতার ব্যবহৃত সরঞ্জাম/পোষাক, বঙ্গবন্ধু এই অঞ্চলে যখন আসতেন তখন বন্ধু-বান্ধব রাজনৈতিক সহকর্মীদের কারো কাছে কোন ছবি, হাতে লেখা চিঠি/চিরকুট থাকলে তা সংগ্রহ করা, ২০২১ সালের মধ্যে বঙ্গবন্ধুর একশতটি আলোকচিত্র সংগ্রহ করা, দেশের বিশিষ্ট শিল্পীদের আঁকা ছবি, বঙ্গবন্ধুর ওপর নির্মিত চলচ্চিত্র ডকুমেন্টরি সংগ্রহ করা, বঙ্গবন্ধুর উল্লেখযোগ্য ভাষণ তার উপর লেখা বই, পত্রিকায় প্রকাশিত প্রবন্ধ, প্রধানমন্ত্রীর লেখা বই, ছবির এলবাম সংগ্রহ ও প্রদর্শনের ব্যবস্থা রাখা, ডিজিটাল আর্কাইভ প্রস্তত করা, বঙ্গবন্ধুর আসমাপ্ত আত্মজীবনী, আমার দেখা নয়াচীন, কারাগারের রোজনামাসহ প্রকাশিত ও প্রকাশিতব্য বই প্রদর্শনী এবং খুলনার পরিচিতিসহ মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস ও অন্যান্য প্রকাশনা বিক্রয়ের জন্য রাখা হবে।
পরে বিভাগীয় কমিশনার জেলা প্রশাসকের কার্যালয় প্রাঙ্গণে ৪২ জন অসহায় ও দুস্থদের মাঝে ৪২টি সেলাই মেশিন, দুই জন প্রতিবন্ধীর মাঝে দুই টি হুইল চেয়ার, একটি ইজিবাইক ও দুইটি ভ্যান গাড়ি বিতরণ করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x