খলিষখালীর জনবহুল রাস্তার বেহাল দশা, জনপ্রতিনিধিরা গেল কই?

বাবলা সরদার, (পাটকেলঘাটা প্রতিনিধি):
উপজেলার খলিষখালীতে দীর্ঘদিন যাবত বেহাল দশায় পরিনত হয়েছে একটি জনবহুল রাস্তা। সামান্য বৃষ্টিতে চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়ে রাস্তাটি। খলিষখালী বাজার থেকে গাছা অভিমুখে যেতে রাস্তাটির বাস্তব চিত্রে দেখা মিলবে । এ জন্য স্থানীয়দের অভিযোগের তীর এবার জনপ্রতিনিধির দিকে। রাস্তায় চলাচল রাত স্বপন দাশ, শ্যামল দাশ, ইকবাল মোড়ল, মনিরুজ্জামান, কামাল সরদার সহ অনেকে জানান, আমরা দীর্ঘদিন যাবত এই রাস্তায় চলাচল করি বর্ষার মৌসুম আসলে বিপাকে পড়ি রাস্তাটি পুরোপুরি চলাচলে অনুউপোযোগী হয়ে পড়ে। রাস্তাটি দেখলে মনে হয় তখন ধান রোপণের উপযোগী হয়েছে।এসময়ে কেউ অসুস্ত হয়ে পড়লে তাকে এই রাস্তায় দিয়ে দ্রুত হাসপাতালে পাঠানো সম্ভব হবেনা বলে জানান তারা । এছাড়া রাস্তায় প্রতিদিন চলাচল করতে গিয়ে দূর্ঘটনা সহ মালামাল পরিবহনেও সমস্যার সম্মুখীন হতে হচ্ছে। সোমনাথ কুন্ডু নামে এক ব্যাবসায়ী জানান, আমাকে ব্যাবসার খাতিরে ঐ রাস্তা দিয়ে প্রতিদিন চলাচল করতে হয়। কিন্তু দুঃখের বিষয় হল দীর্ঘ সময় আওয়ামীলীগ সরকার ক্ষমতার থাকার কারনে দেশের এত উন্নয়ন হলেও খলিষখালীর এই রাস্তার কোন উন্নয়ন হয়নি। আমরা বার বার জনপ্রতিনিধির বলেছি বিনিময়ে তারা শুধুই আশ্বাস দিয়েছেন । খলিষখালী ইউনিয়ন সুধীজন জানায়, প্রতিদিন এই রাস্তা দিয়ে আমাদের চলাচল করতে হয়। সামান্য বৃষ্টিতে রাস্তাটির চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়ে। বর্তমানে রাস্তার যে বেহাল দশা মানুষের দ্বারে গিয়ে নৌকার ভোট চাইলে গালিগালাজ করছে জনগণ।
বিষয়টি নিয়ে ৯নং ইউপি সদস্য উত্তম কুমার দের সাথে কথা বললে তিনি জানান, খুব তাড়াতাড়ি রাস্তাটি সংস্কারের জন্য উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।
খলিষখালী ইউপি চেয়ারম্যান মোজাফফর রহমান জানান, আমিও শুনেছি রাস্তাটির অবস্থা খুবই খারাপ দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এদিকে স্থানীয় জনগণ জানান গত পাঁচ বছরে এই রাস্তাটির একটি ইটের ও সংস্কার করতে পারেননি তিনি হবে হবে বলে পাঁচটি বছর কাটিয়ে দিলেন জনগণের প্রশ্ন আদৌ কি এই রাস্তাটি সংস্কার হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x